আমরা কিভাবে বর্ণ দেখি - জওশন আরা

Published on Sunday, February 26, 2017

আমি জওশন আরা শাতিল, বর্তমানে ইউনিভার্সিটি অফ মেরিল্যান্ডে নিউরোসায়েন্সে পিএইচডি করছি। আমার নিউরোসায়েন্স বিষয়ক পড়ালেখার শুরুটা ২০০৯ -এ তখন আমি সদ্য একজন ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রাজুয়েট। কিন্তু নিউরোসায়েন্স বা স্নায়ুবিজ্ঞানে আমার আগ্রহ এতোটাই, যে বাংলাদেশে আসলে স্নায়ুবিজ্ঞান নিয়ে পড়ালেখা বা গবেষণার সুযোগ তেমন একটা না থাকা স্বত্ব্যেও চালিয়ে যেতে থাকলাম আমার পড়া এবং লেখা, সেই সময় সাথে সঙ্গী হিসেবে ছিল অভিজিৎদা এবং মুক্তমনা। আমি তখন নিউরসায়েন্স নিয়ে যা কিছু পড়তাম, তাই লিখতাম মুক্তমনায়, আর সেসমস্ত প্রত্যেকটা লেখায় উৎসাহ দিতেন অভিজিৎ দা, জানাতেন তার মতামত। সেই উৎসাহগুলোই আমাকে সাহসী করে তুলেছে নিউরোসায়েন্সে পিএইচডি করার পথ পাড়ি দিতে। আজ ২৬শে ফেব্রুয়ারি, অভিজিৎদার দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকীতে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানাই অভিজিৎদা কে আমার নিউরোসায়েন্সের উপর করা প্রথম পডকাস্টের মাধ্যমে।

আজকের পর্বে আমি আলোচনা করব বর্ণের বিজ্ঞান নিয়ে। চোখ মেলে আমাদের দেখা ভোরের সূর্যালোক থেকে পাখির ডানা ঝাপটানো, অজস্র রঙের ফুল, আমাদের চোখে দেখা চারপাশের এই সবুজ পৃথিবী, চিন্তা করে দেখুনতো, এত বর্ণিল পৃথিবীর বর্ণটা আমরা কিভাবে দেখি? এটা আমার কাছে এক অদ্ভুত সৌন্দযময় বিস্ময়। আমরা কিভাবে বর্ণ দেখি তা বুঝতে হলে আমাদের একই সাথে বর্ণের পদার্থবিজ্ঞান আর স্নায়বিজ্ঞানকে জানতে হবে। পডকাস্ট শুনতে পাবেন নিচের প্লেয়ারে।

পডকাস্টটি রয়েছে এখানে

বিজ্ঞান, যুক্তি, মানবতাবাদ, ধর্মনিরপেক্ষতা, নাস্তিকতা, দর্শন নানা বিষয় নিয়ে শুনুন মুক্তমনা পডকাস্ট। পডকাস্ট সম্পর্কে আপনার মতামত জানাতে কিংবা আপনি পডকাস্ট তৈরিতে আগ্রহী হলে আমাদের লিখুন editor@mukto-mona.com এই ঠিকানায়।